বরিশাল ক্রাইম নিউজ

বরিশাল ক্রাইম নিউজ

অন্যায়ের বিরুদ্ধে আমরা

Print Friendly, PDF & Email

বরিশালে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর প্রচারনার অটো নদীতে নিক্ষেপ

নিজস্ব প্রতিবেদক : বরিশাল সদর উপজেলার চরবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো: শহিদুল ইসলাম (ইটালী) এর প্রচারনার অটো তালতলী ব্রিজ লাগোয়া নদীতে ফেলে দিয়েছে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর ক্যাডাররা।

শনিবার বিকেলে(১৯ জুন) প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মাহাতাব হোসেন সুরুজ এর ভাই কবির ও স্বপনের নেতৃত্বে একদল ক্যাডার ইটালি শহিদের প্রচারনার অটো নদীতে ফেলে দেয়া হয়। অটো চালককে অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার করা সম্ভব হলেও অটোটি উদ্ধার করা যায়নি। অটো চালকের নাম আনোয়ার। খবর পেয়ে বিএমপির কাউনিয়া থানা পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

সূত্র জানায়, বিকেলে আনোয়ার হোসেন নামের ব্যক্তি অটোযোগে ইটালী শহিদের প্রচারনা চালাচ্ছিলেন। তালতলী ব্রিজ লাগোয়া স্থানে পৌছলে হঠাৎ করে প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী সুরুজের ক্যাডার বাহিনী অটোটি নদীতে ফেলে দেয়। অটোতে মাইক বাঁধা ছিল। এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনের আশু দৃষ্টি কামনা করেছেন চেয়ারম্যান প্রার্থী ইটালি শহিদ। এরআগে শুক্রবার বেলা ১১টায় ইউনিয়নের তালতলী বাজারে ইটালি শহিদের নির্বাচনী মিছিলে হামলার করেছে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মাহাতাব হোসেন সুরুজের ক্যাডার বাহিনী।

চরবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো: শহিদুল ইসলাম (ইটালী) বলেন, আমার বাড়ির সামনে থেকে আনারস প্রতীকের পক্ষে একটি নির্বাচনী মিছিল বের হয়। মিছিলটি তালতলী বাজারে গেলে আনারস প্রতীকের কর্মী-সমর্থকদের ওপর হামলে পড়ে মারধর করা হয়। প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সুরুজের ক্যাডার বাহিনী এহেন হামলা করছে।

তিনি বলেন, জনগণের মাঝে আমার গণোজায়ার দেখে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ও তার ক্যাডার বাহিনী বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। মাহাতাব হোসেন সুরুজ এলাকায় দ্বাম্ভিকতার সুরে হুঙ্কার দিয়ে প্রকাশ করেন যে, আমি টাকা দিয়ে মনোনয়ন কিনেছি, আমি কেন হতে পারবা না। এদিকে মাহাতাব হোসেন সুরুজের বিরুদ্ধে রয়েছে অন্তহীন অভিযোগ। নানা অনিয়ম ও দুর্নীতার মাধ্যমে অগাধ বিত্ত বৈভবের মালিক বনে গেছেন।

সূত্র জানায়, সুরুজের ভাই হাসিব মল্লিকসহ আত্মীয় স্বজনের এক্যাউন্টে কোটি কোটি টাকা রাখার অভিযোগ রয়েছে সুরুজের বিরুদ্ধে। এলাকাবাসীর অভিযোগ চেয়ারম্যান পদে দ্বায়িত্ব থাকাবস্থায় কোন ধরণের উন্নয়নমূলক কাজ করেনি মাহাতাব হোসেন সুরুজ। এলাকায় কোন কাজ এবং নানান অনিয়মের মাধ্যমে তিনি অর্থ হাতিয়ে নেন। চরবাড়িয়ার সর্বস্তরের জনগণ মাহাতাব হোসেন সুরুজের হাত থেকে বাঁচতে চায়।

বুধবার (১৬ জুন)বরিশাল সদর উপজেলার চরবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো: শহিদুল ইসলাম (ইটালী) এর কর্মী জাহিদ হোসেনকে মারধর করে প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মাহাতাব হোসেন সুরুজ এবং তার পালিত ক্যাডার বাহিনী। এ ঘটনায় বিএমপির কাউনিয়া থানায় অভিযোগ দেয়া হয়েছে। এছাড়া বুধবার সন্ধ্যারাতে কাগাশুরা বাজারের মোবাইল টায়ার সংলগ্ন ইটালি শহিদের মাইক ভাঙচুর করে সুরুজের ক্যাডার বাহিনী। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এবং অটো চালককে বেধম মারধর করা হয়েছে। এরআগে অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীদের মহড়ার বিষয়ে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ দেয়া হয়েছে। একইসঙ্গে বরিশাল মেট্রাপলিটন পুলিশ কমিশনার বরাবরে অভিযোগ দেন চেয়ারম্যান প্রার্থী মো: শহিদুল ইসলাম (ইটালী)। এবং বরিশাল জেলা প্রশাসকের কাছে এক অভিযোগও দিয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মো: শহিদুল ইসলাম (ইটালী)।

শেয়ার করুন :
Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on whatsapp
WhatsApp

আপনার মন্তব্য করুন :