বরিশাল ক্রাইম নিউজ

বরিশাল ক্রাইম নিউজ

অন্যায়ের বিরুদ্ধে আমরা

Print Friendly, PDF & Email

‘কোনো দিন ভাবিনি স্যার আমার সঙ্গে এ রকম…

আজ ৫ সেপ্টেম্বর, বিশ্ব শিক্ষক দিবস। শিক্ষাগুরুদের প্রতি সম্মান জানাতে সারা বিশ্বজুড়ে পালিত হয় দিনটি। শ্রদ্ধা, ভালোবাসা জড়িত রয়েছে ‘শিক্ষক’ শব্দটির মধ্যে। স্বাভাবিকভাবেই কোচকে সম্মান করত ভারতের এক কিশোরী। সম্পর্কের খাতিরে তার পরিবারের সঙ্গেও যাওয়া-আসা ছিল ওই শিক্ষকের। তবে ওই কিশোরী কখনও কল্পনাও করতে পারেনি শ্রদ্ধার পাত্র এই ব্যক্তিটিই তার শরীরের হাত দেবে। শিক্ষকের মাধ্যমেই যৌন হয়রানির শিকার হতে হবে তাকে!

ভারতে কোচের কাছে যৌন হয়রানির শিকার হয়েছে জাতীয় প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়া এক সাঁতারু। দেশটির জনপ্রিয় বাংলা পত্রিকা আনন্দবাজারের কাছে বর্ণনা করেছে কোচ দ্বারা নিপীড়নের ঘটনা। নিজের বুদ্ধিমত্ত্বায় গোপনে এসব ঘটনার ভিডিও ধারণ করে তাও ফাঁস করে দেয়ছে সে।

অভিযুক্ত ওই কোচের নাম সুরজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়। ওই কিশোরী জানায়, তার পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কোচের ভালো সম্পর্ক ছিল। সেই সম্পর্কের জের ধরে কোচের ডাকে সাড়া দিয়ে চলতি বছরের মার্চে সপরিবার গোয়া যায় তারা। সেখানে যাওয়ার পর থেকেই যৌন হেনস্থার শুরু। দীর্ঘ ছয়মাস নানা অছিলায় সুরজিৎ জাতীয় প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়া ওই কিশোরী সাঁতারুর যৌন হেনস্থা করতেন। প্রথমে লজ্জায়, অপমানে, ভয়ে নিজেকে গুটিয়ে রাখত মেয়েটি। দেয়ালে পিঠ ঠেকে যাওয়া অবস্থায় একদিন নিজেই ঠিক করে ফেলে, সব ফাঁস করে দেবে। সেই পরিকল্পনামাফিক কোচের নোংরামির ভিডিও মোবাইলবন্দি করে সে। পরে সেগুলো ফাঁস করে দেয়।

কিশোরীর বলে, গোয়া যাওয়ার পর থেকেই স্যার আমার সঙ্গে খুব খারাপ আচরণ করতেন। ব্ল্যাকমেল করতেন। আমি আর মানসিকভাবে নিতে পারছিলাম না। তখনই ঠিক করি, কিছু একটা করতে হবে। সেই মতো মোবাইলে ওই ভিডিও রেকর্ড করি।

সে আরও বলে, গত পাঁচ বছর ধরে স্যারের পরিবারের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক। খুবই ভালো ছিল। স্যারের ছেলেও খুব ভালো সাঁতারু।’এরপর একটু থেমে সে বলে, ‘কোনো দিন ভাবিনি, স্যার আমার সঙ্গে এ রকম…!’ এরপর সে আর কিছু বলেনি।

এ ঘটনায় থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে মেয়েটি। অভিযুক্ত সাঁতার কোচের বিরুদ্ধে কঠিন শাস্তির প্রতিশ্রুতিও দিয়েছেন কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী কিরেন রিজিজু।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on whatsapp
WhatsApp

আপনার মন্তব্য করুন :